২৫শে ফেব্রুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ , ১২ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

বার্তাটি লিখেছেন: আশফাকুর রহমান

আমার সম্পর্কে : বার্তা বিভাগ প্রধান
প্রচ্ছদ বিভাগ সিলেট

জালালাবাদ থানা পুলিশ কর্তৃক ০৫ জন জুয়াড়ী আটক

জালালাবাদ থানাধীন মেদেনী মহল সাকিনস্থ মেদেনী মহল মন্দিরের পশ্চিম উত্তর কোনে পতিত ভূমির উপর কয়েকজন লোক টাকার বিনিময়ে প্রকাশ্যে অবৈধ ভাবে জুয়া খেলিতেছে । উক্ত সংবাদের সত্যতা যাচাইয়ের জন্য ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে অবগত করি এবং উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশে সঙ্গীয় অফিসারসহ এএসআই(নিরস্ত্র) মোঃ মানিক মিয়া ।  উল্লেখিত ঘটনাস্থলে রাত ২৩:১০ ঘটিকার সময় পৌছাইলে পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে কয়েকজন লোক দৌড়ে পালানোর চেষ্টা কালে পুলিশ তাদের আটক করে তারা হলেন ১। মোঃ হাছান মিয়া(১৮) পিতা-সিরাজ মিয়া, মাতা-মৃত মায়ারুন নেছা, সাং-পশ্চিমদর্শা, থানা-জালালাবাদ, জেলা-সিলেট, ২। মোঃ তাজ উদ্দিন(১৯) পিতা-আব্দুল বশির, মাতা-আজিরুন নেছা, সাং-সুকলামপুর, পোঃ-কামাল বাজার, থানা- দক্ষিণ সুরমা, জেলা-সিলেট, ৩। মোঃ ইব্রাহিম আলী(২০) পিতা- ফিরোজ আলী, মাতা- দয়ারুন নেছা, সাং-বলাউড়া খালিগাঁও, থানা-জালালাবাদ, জেলা-সিলেট, ৪। মারুফ আহমদ(১৮) পিতা-মখলিছ মিয়া, মাতা-সোনারা বেগম, সাং- তাজপুর, ১নং মোল্লারগাঁও ইউ/পি, থানা- দক্ষিণ সুরমা, জেলা-সিলেট, ৫। মোঃ সাইদুল ইসলাম(২১) পিতা-মুকবুল আলী, মাতা- আসমা বেগম, সাং-পশ্চিমদর্শা, তালুকদার বাড়ী, থানা-জালালাবাদ, জেলা-সিলেটদের । আটক আসামীদের হেফাজত হইতে (ক) ০১টি রেক্সিন প্লাস্টিকের ডিজিটাল প্রিন্টকৃত জুয়ার বোর্ড, যাহার মোট দৈর্ঘ্য ৩ ফুট ও প্রস্থ ২ ফুট। (খ) ০১টি রেক্সিন প্লাস্টিকের ডিজিটাল প্রিন্টকৃত জুয়ার বোর্ড, যাহার মোট দৈর্ঘ্য ৪ ফুট ও প্রস্থ ৩ ফুট, (গ) ০১টি বর্গাকৃতির কাঠের টুকরা যাহা ৪ সেন্টিমিটার করে বর্গাকার, ০৬টির পাশে পেরেগ ঢুকানো প্লাস্টিকের ছবিকৃত প্রিন্ট আটকানো, (ঘ) ০১টি টিনের কৌটা যাহার দৈর্ঘ্য ০৬ ইঞ্চি এবং প্রস্থ গোলাকার ০৪ ইঞ্চি ও (ঙ) জুয়া খেলার বোড হইতে নগদ সর্বমোট- ১০৪০/- টাকা উদ্ধার করে ১৪/০১/২০২১ খ্রিঃ তারিখ ২৩:৩০ ঘটিকায় উপরোক্ত ঘটনাস্থলে জব্দ করা হয়। পরবর্তীতে এই সংক্রান্তে এএসআই(নিঃ) মোঃ মানিক মিয়া বাদী হইয়া আটক ০৫ জন আসামীর বিরুদ্ধে থানায় এজাহার দায়ের করিলে জালালাবাদ থানার মামলা নং-১৭, তাং-১৫/০১/২০২১খ্রিঃ, ধারা-১৮৬৭ সনের জুয়া আইনের ৩/৪ রুজু করা হয়। আটক আসামীদের বিধি মোতাবেক আদালতে প্রেরণ করা হয়। বিষয়টি অফিসার ইনচার্জ, জনাব মোঃ নাজমুল হুদা খাঁন, জালালাবাদ থানা, এসএমপি,সিলেট নিশ্চিত করেন।

Leave a comment