১১ই আগস্ট, ২০২০ ইং , ২৭শে শ্রাবণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

বার্তাটি লিখেছেন: mahfuz ahmed

আমার সম্পর্কে : প্রতিনিধি
প্রচ্ছদ বিভাগ বিনোদন

শাকিব খানের ‘বীর’ আসল না নকল

‘বীর’ ছবির লুকে চমক আছে বলে আগেই ঘোষণা দিয়েছিলেন চিত্রনায়ক শাকিব খান। আজ বৃহস্পতিবার প্রকাশ হয় এর প্রথম লুক। ফার্স্ট লুকে সবাইকে রীতিমতো চমকেই দিয়েছেন শাকিব। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতেও দাপিয়ে বেড়াচ্ছে সিনেমাটির পোস্টার। তবে এরই মধ্যে কথা উঠেছে ছবিটি আসল না নকল?

‘বীর’র প্রথম লুক দেখে অনেকেই মন্তব্য করেছেন, এটি ভারতের কন্নড় ভাষার ছবি ‘কেজিএফ : চ্যাপটার ওয়ান’-এর পোস্টার নকল করা হয়েছে। ‘কেজিএফ’ গত বছর এই সময়েই ভারতে মুক্তি পায়। অভিযোগ উঠেছে, পোস্টারে ‘কেজিএফ’ এর নায়ক যশ আর ‘বীর’ ছবির নায়ক শাকিব খানের লুক প্রায় একই। শুধু পোস্টারই নয় ‘বীর’ ছবিটাও নাকি ‘কেজিএফ’ এর আদলে তৈরি করা হয়েছে।

তবে নির্মাতা কাজী হায়াতের দাবি, ‘এটি সম্পূর্ণ মৌলিক গল্পের ছবি। গল্পটা দেশপ্রেমের। এক যুবক কীভাবে নোংরা রাজনীতির শিকার হয় তাই এখানে তুলে ধরা হয়েছে। এর সঙ্গে দেশি-বিদেশি কোনো গল্পের মিল নেই। এদিকে, ‘বীর’ নিয়ে সমালোচকদের মন্তব্য প্রসঙ্গে শাকিব খান একটি গণমাধ্যমকে জানান, ‘কেজিএফ : চ্যাপ্টার ওয়ান’ ছবির সঙ্গে মিল হওয়ার কোনো কারণ নেই। এর গল্পটি একেবারেই মৌলিক। আর ‘কেজিএফ’ এক ধরনের ছবি আর ‘বীর’ আরেক ধরনের ছবি। তাছাড়া ছবির পরিচালক কাজী হায়াত। তিনি যথেষ্ট অভিজ্ঞ। কিছু মানুষ আছে, যারা শুধু শুধু এসব খুঁজে বের করবে।

অন্যদিকে, ‘বীর’ ছবির ফার্স্টলুক তৈরি করেছেন জনপ্রিয় গ্রাফিক ডিজাইনার সাজ্জাদুল ইসলাম সায়েম। তিনি বলেন, ‘বিষয়টি নিয়ে খুবই মর্মাহত। কারণ, একটা মৌলিক ক্রিয়েটিভ কাজ প্রকাশের পর যদি সেটাকে নকল বলে উড়িয়ে দেওয়া হয়, তখন খুব কষ্ট লাগে। “কেজিএফ”র পোস্টারের সঙ্গে আমাদের পোস্টারের একটাই মিল- সেটা হলো দুই নায়কের গালেই দাড়ি আছে। এর বাইরে আর কোনো মিল নাই। এখন নায়কের দাড়ি থাকলেই কি সেটা ‘কেজিএফ’র নকল হয়ে যাবে?’

উল্লেখ্য, শাকিব খান প্রযোজিত কাজী হায়াতের ৫০তম ছবি ‘বীর’। এতে শাকিবের বিপরীতে অভিনয় করছেন চিত্রনায়িকা বুবলী। ছবিতে আরও আছেন মিশা সওদাগর, সাদেক বাচ্চু, সুনান, নাদিমসহ আরও অনেকে।

Leave a comment