২৬শে আগস্ট, ২০১৯ ইং , ১১ই ভাদ্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

বার্তাটি লিখেছেন: আশফাকুর রহমান

আমার সম্পর্কে : বার্তা বিভাগ প্রধান
প্রচ্ছদ বিভাগ জীবনযাপন

বরফপড়া জম্মু পুড়ছে রেকর্ড ৪০ ডিগ্রি তাপমাত্রায়

ভারতের যে রাজ্যটিকে ঠাণ্ডার রাজধানী বলা হয়; বছরের ১২ মাসই হিমেল হাওয়া যেখানে, একইসঙ্গে হিমালয় পার্বত্য অঞ্চলে যার অবস্থান, সেই জম্মু ও কাশ্মীরে এবার ইতিহাসের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে। রাজ্যটির জম্মু বিভাগে সর্বোচ্চ ৪০ ডিগ্রি তাপমাত্রায় উষ্ণতা ছড়াচ্ছে বলে ভারতীয় আবহাওয়া অধিদফতর বলছে।

আবহাওয়া অফিসের বরাত দিয়ে স্থানীয় সংবাদমাধ্যম বলছে, জম্মু ও কাশ্মীর ভারতের ঠাণ্ডার রাজধানী নামে পরিচিত। বছরের বেশির ভাগ সময়ই এখানে বরফ পড়ে। কিন্তু এবারের গ্রীষ্মে রাজ্যটির জম্মুতে প্রথমবারের মতো সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছুঁয়েছে ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াসে। বর্তমানেও বিভাগটিতে ৩৯ ডিগ্রি তাপমাত্রা। যদিও আসছে কয়েকদিনের মধ্যে রাজ্যটিতে ঘণ্টায় ৪০ থেকে ৫০ কিলোমিটার বেগে গ্রীষ্মকালীন ঝড়, সঙ্গে বজ্রপাতও হতে পারে বলে পূর্বাভাস দিচ্ছে আবহাওয়া অধিদফতর।

বরফপড়া জম্মু পুড়ছে রেকর্ড ৪০ ডিগ্রি তাপমাত্রায়, ছবি: সংগৃহীত

দেশটির এক আবহাওয়াবিদ বলছেন, ভারত নিয়ন্ত্রিত জম্মু ও কাশ্মীর রাজ্যের ইতিহাসের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল বুধবার (০৮ মে)। এ দিন বিকেলে রাজ্যটিতে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা অতিক্রম করেছিল ৪০ দশমিক ১ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আর সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল ২৫ দশমিক ৫ ডিগ্রি। একইসঙ্গে সামনের দিনে তাপমাত্রা আরও বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। কিন্তু শুক্রবারের (১০ মে) পরে রাজ্যে ছোটখাটো ঝড় বয়ে যেতে পারে বলে জানিয়েছেন তিনি।একেতো জম্মু ও কাশ্মীরবাসীর সবসময় ঠাণ্ডা সয়ে অভ্যাস, তার ওপর আবার এখনের তীব্র গরম- সব মিলে টানা কয়েকদিনের তাপদাহে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে রাজ্যটির জনজীবন। অসহনীয় গরমে অস্বস্তিতে সময় পার করছেন হিমালয় পার্বত্য অঞ্চলের মানুষ।

Leave a comment