২৪শে জানুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ , ১০ই মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

বার্তাটি লিখেছেন: Shuddhobarta 24

আমার সম্পর্কে : This author may not interusted to share anything with others
প্রচ্ছদ বিভাগ ইসলামিক

ভাস্কর্য বিতর্ক: অবস্থান পরিবর্তন নয়, তবে সরকারের সাথে আলোচনা চায় হেফাজত

বাংলাদেশে ভাস্কর্য ইস্যুতে সরকারকে ইসলামের শিক্ষা অনুযায়ী চলা এবং সরকারের প্রতি ‘দেশের ইসলাম বিদ্বেষীদের’ নিয়ন্ত্রণের আহ্বান জানিয়েছে হেফাজতে ইসলাম।এছাড়া সংকট নিরসনে সরকারের সঙ্গে বিষয়টি নিয়ে ‘যোগাোযোগ হচ্ছে’ এবং ‘দ্রুতই বৈঠকের ব্যবস্থা হবে’ বলে জানিয়েছেন সংগঠনটির নেতৃবৃন্দ।ঢাকায় বৃহস্পতিবার এক সংবাদ সম্মেলন করে এসব অভিযোগ করে সংগঠনটি।লিখিত বক্তব্যে হেফাজতে ইসলামের নায়েবে আমীর নুরুল ইসলাম দাবি করেন, কুষ্টিয়ায় বাংলাদেশের প্রতিষ্ঠাতা রাষ্ট্রপতি শেখ মুজিবুর রহমানের ভাস্কর্য ভাঙার সঙ্গে দলটির কারো সংশ্লিষ্টতা নেই।তিনি অভিযোগ করেছেন, “ভাস্কর্য ভাঙার দায় হেফাজতে ইসলামের ওপর ‘চাপিয়ে’ আমাদের ‘ঘায়েল করার’ চেষ্টা হচ্ছে।”বাংলাদেশে ভাস্কর্য ইস্যুতে সরকারকে ইসলামের আকিদা, ঈমান ও শিক্ষার বিরুদ্ধে গিয়ে ‘পৌত্তলিকতা প্রসারের রাষ্ট্রীয় গোমরাহির পথ পরিহার করার’ আহ্বান জানান নুরুল ইসলাম।তিনি বলেছেন, “ইতোমধ্যে শীর্ষ ওলামায়ে-কেরামের পক্ষ থেকে যে কোনো প্রাণীর ভাস্কর্য নির্মাণের বিষয়টি ‘ইসলাম-সম্মত নয়’ বলে সর্বসম্মত ফতোয়া প্রদান করা হয়েছে, যা একটি পত্র দিয়ে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে অবহিত করা হয়েছে। আমরা আশা করবে সে আলোকে সিদ্ধান্ত নেবে সরকার।”ভাস্কর্য ইস্যুতে হেফাজতে ইসলামের অবস্থান পরিবর্তন হবে না বলে জানিয়ে দেন তিনি।তিনি বলেন, “সেক্যুলার শব্দের আড়ালে আশ্রয় নেয়া ইসলাম বিদ্বেষীদের নিয়ন্ত্রণ করার জন্য সরকারের প্রতি জোর আহ্বান জানাচ্ছি। অন্যথায় বাংলাদেশের ধর্মপ্রাণ মানুষ ‘এই কুচক্রী’দের রুখে দিতে রাস্তায় নামতে বাধ্য হবে।”হেফাজতে ইসলামের নেতাদের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহ মামলাকে ‘ মিথ্যা’ দাবি করে সংগঠটির পক্ষ থেকে মামলা প্রত্যাহারের দাবি জানানো হয়েছে।সংবাদ সম্মেলনে হেফাজতে ইসলামের অন্যান্য নেতৃবৃন্দের সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন মামুনুল হক।

Leave a comment